বিনোদন

‘বিচ্ছেদের পরও কাইলি আমার ভালো বন্ধু’

ব্রিট বাংলা ডেস্ক :: বিবাহ বিচ্ছেদের পরও কাইলি বলডির সঙ্গে নিয়মিত যোগাযোগ রাখছেন মাইকেল ক্লার্ক। অস্ট্রেলিয়ার হয়ে ওয়ানডে বিশ্বকাপ জেতা সাবেক এই অধিনায়ক বলেন, ‘আমাদের সম্পর্ক শেষ হয়ে গেছে ঠিক, কিন্তু এখনো অামরা পরস্পরের ভালো বন্ধু।’

গত ফেব্রুয়ারিতে এক যৌথ বিবৃতিতে বিবাহ বিচ্ছেদের বিষয়টি নিশ্চিত করেন ক্লার্ক-কাইলি। তাদের সাত বছরের সংসারের ফসল চার বছর বয়সী শিশুকন্যা কেলসি লি। বিচ্ছেদের সময় তারা প্রতিজ্ঞা করেন দুজনই দেখাশোনা করবেন কেলসিকে। কিছুদিন আগে মার সঙ্গে দেখা করতে চেয়েছিল সে। ক্লার্ক নিজে গাড়ি ড্রাইভ করে কেলসিকে নিয়ে যান কাইলির বাসায়। সেখানে তিনজন মিলে হ্যাংগ আউট করেছেন। বিচ্ছেদের বিষয়টি আসলে ছোট্ট মেয়েটাকে বুঝতে দিচ্ছেন না ক্লার্ক-কাইলি।

সম্প্রতি একটি প্রোগ্রামে ক্লার্ক বলেন, আমার মনে হয়, কাইলির সঙ্গে আমার বন্ধুত্বটা আগের মতোই আছে।

আমরা প্রতিদিন কথা বলি। আপনারা কাইলির মুখ থেকে শুনে থাকবেন, সে বলেছে আমরা আমাদের মেয়ের দিকটা প্রাধান্য দেবো। আর বাবা-মায়ের বন্ধুত্ব সেটারই একটা অংশ।’
কাইলির সঙ্গে সম্পর্কটা এমনই রাখতে চান ক্লার্ক, ‘আমাদের মেয়ের বয়স কম হওয়ায় ব্যাপারটা হয়তো সহজ। কিন্তু আমি মনে করি সম্পর্কটা চিরকাল এমনই থাকবে। আর কেলসির জন্য যেটা ভালো হবে, সেটাই করবো আমরা।’

ক্লার্ক-কাইলির বিচ্ছেদের খবর মিডিয়াতে আসে ৫-৬ মাস পর। খবরটা দেরিতে পাবলিক করা প্রসঙ্গে ক্লার্ক বলেন, ‘বিচ্ছেদ সবার জন্যই কষ্টকর। তবে এটা ৫-৬ মাস পর পাবলিক হওয়াটা ছিল অামাদের জন্য মঙ্গলকর। এর ভেতরে নিজেদের সামলে নেয়ার সুযোগ পেয়েছিলাম।’

মাইকেল ক্লার্ক এখন ফ্যাশন ডিজাইনার পিপ এডওয়ার্ডের সঙ্গে ডেটিং করছেন। এর আগে আরেক ফ্যাশন ডিজাইনার ড্যান সিঙ্গেলের সঙ্গে সম্পর্ক ছিল এডওয়ার্ডের। ড্যান-এডওয়ার্ডের জাস্টিস ম্যাক্সিমাস নামে একটি ছেলে সন্তানও আছে। তাদের সবাইকে নিয়ে ভালোই কাটছে মাইকেল ক্লার্কের বিচ্ছেদ পরবর্তী জীবন।

Related Articles

Back to top button