সৌম্য–মিঠুনের খেলা হচ্ছে না আফগান লিগ

ব্রিট বাংলা ডেস্ক :: আজ বিকেলে দুবাইয়ে উড়াল দেওয়ার কথা ছিল সৌম্য সরকার ও মোহাম্মদ মিঠুনের। দুজনের খেলার কথা ছিল আফগানিস্তান প্রিমিয়ার লিগের (এপিএল) দল কান্দাহার নাইটসের হয়ে। কিন্তু শেষ পর্যন্ত সেটি হচ্ছে না। বাংলাদেশ দলের দুই ব্যাটসম্যানকে অনাপত্তিপত্র (এনওসি) দেয়নি বিসিবি।

কাল রাজশাহী থেকে জাতীয় লিগের প্রথম পর্বের ম্যাচটা খেলেই আজ ঢাকা চলে আসেন সৌম্য। মিঠুন অবশ্য দুবাইয়ে এশিয়া কাপ খেলেই বিশ্রামে। আজ বিকেল ৫টার ফ্লাইটে দুজনের চলে যাওয়ার কথা দুবাইয়ে। কান্দাহার নাইটসের সঙ্গে দুজনেরই ২০ হাজার ডলারের (১৬ লাখ টাকা) চুক্তি। কিন্তু এনওসি না পাওয়ায় আপাতত এপিএল খেলার চিন্তা মাথা থেকে ঝেড়ে ফেলতে হচ্ছে দুজনকে। সৌম্য-মিঠুন এপিএলের জায়গায় জাতীয় লিগ খেলতে কাল চলে যাবেন খুলনায়। সামনে বাংলাদেশ দলের ব্যস্ত সূচি, যেটি শুরু এ মাসের শেষ দিকে। জিম্বাবুয়ে ও ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে দুটি হোম সিরিজের পর বিপিএল। ফেব্রুয়ারিতে নিউজিল্যান্ড সফর। জাতীয় দলের ব্যস্ততার কথা ভেবেই দুজনকে এনওসি দেওয়া হচ্ছে না বলে জানালেন বিসিবি ক্রিকেট পরিচালনা বিভাগের প্রধান আকরাম খান, ‘জাতীয় দলের ব্যস্ততা ও আসন্ন দুটি হোম সিরিজের কথা ভেবে সৌম্য ও মিঠুনকে আমরা এনওসি দিতে চাচ্ছি না।’

বাংলাদেশের খেলোয়াড়দের মধ্যে তাসকিন আহমেদ খেলছেন এপিএলে। সৌম্য-মিঠুনকে না দেওয়া হলেও তাসকিনকে কেন এনওসি দেওয়া হয়েছে, আকরাম সেটির ব্যাখ্যাও দিয়েছেন, ‘ও তো ফাস্ট বোলার, দীর্ঘদিন চোটে ভুগেছে। মাত্রই চোট থেকে ফিরেছে। দেখি ওখানে কেমন করে। হয়তো দু-এক ম্যাচ খেলে তাকেও ফিরে আসতে হতে পারে।’

এপিএলে খেলার কথা ছিল তামিম ইকবাল ও মুশফিকুর রহিমেরও। দুজন অবশ্য চোটে পড়ে আপাতত বিশ্রামে। শারজায় এপিএল শুরু হচ্ছে আজ, যেটির ফাইনাল ২১ অক্টোবর।

Leave a Reply

Developed by: TechLoge

x