লন্ডন ইক্বরা ইন্সটিটিটের আলিমি কোর্সের সনদ ও পুরস্কার বিতরণ সম্পন্ন

Posted on by

লন্ডনের কমিউনিটির ঐতিহ্যবাহী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান লন্ডন ইক্বরা ইন্সটিটিউট থেকে সাফল্যের সাথে আলিমি কোর্স এর এন্ড অফ ইয়ার সেরেমনি অনুষ্ঠান সম্পন্ন হয়েছে । বৃটেনের বিভিন্ন কলেজ বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যয়নের পাশাপাশি ইক্বরা ইন্সিটিটিউট থেকে আলিমি কোর্স সম্পন্ন করেছেন এসব শিক্ষার্থীরা। গত ২৪ মার্চ রোববার লন্ডন মুসলিম সেন্টারে এক অনাড়ম্বর অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে তাদের হাতে গ্রাজুয়েশন অ্যাওয়ার্ড ও সার্টিফিকেট তুলে দেওয়া হয়। এছাড়াও এই প্রতিষ্ঠান থেকে বিভিন্ন বিষয়ে বার্ষিক পরীক্ষায় ফলাফল অর্জনকারী শিক্ষার্থীদেরকেও পুরস্কৃত করা হয়।

এ উপলক্ষে আয়োজিত ইয়ার এন্ডিং সেরেমনি অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন লন্ডন এডুকেশন ট্রাস্ট ও লন্ডন ইক্বরা ইন্সিটিটিটের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আব্দুল মুনিম জাহেদী ক্যারল। অনুষ্ঠানের শুরুতে স্বাগত বক্তব্য রাখেন ইক্বরা ইন্সিটিটিউট এর ভাইস প্রিন্সিপাল মাওলানা এফ কে এম শাহজাহান।
প্রধান অতিথি হিসেবে শিক্ষার্থীদের হাতে অ্যাওয়ার্ড তুলে দেন ইস্ট লন্ডন মসজিদ ও লন্ডন মুসলিম সেন্টারের নির্বাহী পরিচালক দেলোয়ার হোসেন খান।
ইক্বরার চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আব্দুল মুনিম জাহেদী ক্যারল ও ইক্বরা ইন্সিটিটিউট প্রিন্সিপাল মাওলানা জিয়াউর রহমান।

ইভিনিং ও উইকএন্ড ভিত্তিক এই মাদ্রাসাটি প্রতিষ্ঠা করা হয় ২০০৯ সালে। শুরুতে মাত্র ৬০জন শিক্ষার্থী নিয়ে যাত্রা শুরু হয় প্রতিষ্ঠানটির। লন্ডনের পাশাপাশি ওল্ডহামেও প্রতিষ্ঠা করা হয়েছে আরেকটি ক্যাম্পাস। দুটি ক্যাম্পাস মিলে বর্তমানে প্রতিষ্ঠানটিতে অধ্যয়ন করছেন প্রায় ৪৫০ শিক্ষার্থী। শিশু, বয়ষ্করাও আলিমি কোর্স, হিফজ কোর্সসহ নানা বিষয়ে পাঠদান চলছে পার্ট টাইম ভিত্তিক এই মাদ্রাসাটিতে। প্রতি বছর শিক্ষার্থীরা ভালো ফলাফল অর্জন করছেন। এ বছরও কোরআন, নাশিদ, তেলাওয়াত, আরবি, ইংরেজী বক্তৃতা, সেরা শিক্ষার্থীসহ বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে দক্ষতার স্বাক্ষরকারী ছাত্র-ছাত্রীদের অ্যাওয়ার্ড প্রদান করা হয়।
প্রধান অতিথির বক্তব্যে ইস্ট লন্ডন মসজিদ ও লন্ডন মুসলিম সেন্টারের নির্বাহী পরিচালক দেলোয়ার হোসেন খান বলেন লন্ডনে মেয়েদেরকে ইসলামিক শিক্ষা ও আধুনিক শিক্ষায় শিক্ষিত করে একজন ভালো ও শিক্ষিত আদর্শ মা তৈরির জন্য বলিষ্ট ভূমিকা রাখছে ইক্বরা ইন্সিটিটিউট।
সমাপনী বক্তব্যে প্রিন্সিপাল মাওলানা জিয়াউর রহমান বলেন, কমিউনিটির জন্য যোগ্য নাগরিক তৈরীর লক্ষ্য নিয়ে প্রতিষ্ঠা করা হয়েছিলো লন্ডন ইক্বরা ইন্সিটিটিউট। একজন ভালো মুসলমানের পাশাপাশি সমাজের একজন ভালো সিটিজেন হিসেবে শিক্ষার্থীরা যাতে গড়ে উঠে সেদিকে সবচেয়ে বেশী নজর দেওয়া হচ্ছে। কমিউনিটির সহযোগিতা অব্যাহত থাকলেও আগামীতে প্রতিষ্ঠানটি আরো বেশী সেবা দিতে সক্ষম হবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন তিনি।
অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে আরো বক্তব্য রাখেন লন্ডন ইক্বরা ইন্সিটিটিউট শিক্ষক রেশমা শেখ, সামিরা আবিদ, মিনা মুকিদ, আব্দুল কবির, নাদিম সায়েদ
ওহিদুর রহমান সেলিম, দিনব্যাপী এই অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন তানজিম আব্দুল্লা, মওদুদ আল বান্না ও সুমাইয়া সাদিয়া।
প্রেস বিজ্ঞপ্তি

Leave a Reply

More News from কমিউনিটি

More News

Developed by: TechLoge

x