আইএসে যোগ দেয়া নাগরিকদের খুঁজে পাচ্ছে না জার্মানি

Posted on by

ব্রিট বাংলা ডেস্ক :: ২০১৩ সালের পর অন্তত ১০০০ জন জার্মান নাগরিক ‘ইসলামিক স্টেটে’ যোগ দেয়ার জন্য মধ্যপ্রাচ্যে গিয়েছেন৷ এর এক তৃতীয়াংশ পরবর্তীতে জার্মানিতে ফেরত এসেছেন, অনেকে যুদ্ধে মারা গিয়েছেন৷কেউ জেলে ,বাকি অনেকের সন্ধান পাচ্ছে না জার্মানি৷খবর ডয়চে ভেলের।

জার্মানির ভেল্ট আম সনটাগ পত্রিকা জানিয়েছে, সিরিয়া ও ইরাক গিয়ে তথাকথিত ইসলামিক স্টেটে যোগ দিয়েছেন, এমন ১৬০ জার্মান নাগরিককে খুঁজে পাচ্ছে না সরকার৷ ফ্রি ডেমোক্র্যাট পার্টি- এফডিপির আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে এ তথ্য জানিয়েছে জার্মান স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়৷

মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, জার্মান আইএস যোদ্ধাদের অনেকে যুদ্ধক্ষেত্রে মারা গিয়ে থাকতে পারেন, কিন্তু ‘কিছু ক্ষেত্রে কেউ কেউ পালিয়ে থাকতে বা নিখোঁজ হয়ে থাকতে পারেন৷’ তবে ‘ওয়ান্টেড তালিকা বা প্রবেশ নিষেধাজ্ঞার’ মতো ব্যবস্থা থাকায় কর্তৃপক্ষের নজর এড়িয়ে আইএস যোদ্ধাদের জার্মানিতে অবস্থান করা প্রায় অসম্ভব বলেও জানিয়েছে সরকার৷

এফডিপির মহাসচিব লিন্ডা টয়টেব্যার্গ ভেল্টকে জানিয়েছেন, ‘‘আইএসের হয়ে যুদ্ধ করে আসা জার্মান নাগরিকদের দেশে প্রবেশ ঠেকাতে বাড়তি কোনো উদ্যোগ নেই সরকারের৷”

এই আইএস যোদ্ধাদের বিচারের মুখোমুখি করতে কার্যকরী উগ্যোগ না নেয়ায় সরকারের সমালোচনা করেছেন টয়টেব্যার্গ৷ তিনি বলেন, ‘‘যুদ্ধবিধ্বস্ত এলাকা থেকে আটক সব জার্মান নাগরিক এবং জার্মানিতে ফেরত আসা দুই শতাধিক সাবেক আইএস সমর্থকের ক্ষেত্রেই এই কথা খাটে৷”

দেশের বাইরে সংগঠিত যুদ্ধাপরাধের তদন্ত ও বিচার করতে জার্মান সরকারকে আরো শক্তিশালী ভূমিকা নেয়ার আহ্বানও জানিয়েছেন এই এফডিপি নেতা৷

Leave a Reply

Developed by: TechLoge

x