প্রবাসসিলেট

গ্রীসে বিশ্ব সিলেট উৎসবে পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. আব্দুল মোমেন

সিলেট অফিস :: আদি সভ্যতার দেশ গ্রীসের রাজধানী এথেন্সে হোটেল প্রেসিডেন্ট মিলনায়তনে জালালাবাদ এসোসিয়েশন গ্রীস শাখা আয়োজিত বিশ্ব সিলেট উৎসব গতকাল মঙ্গলবার বিকাল ৬ টার সময় সংগঠনের সভাপতি সাংবাদিক তাইজুল ইসলাম ফয়েজ এর সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক মোঃ মুমিন খানের পরিচালনায় উৎসবের শুভ উদ্বোধন ঘোষণা করেন কেন্দ্রীয় সভাপতি সাবেক সচিব ড. এ কে আব্দুল মুবিন।

প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ সরকারের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন এমপি। প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে বলেন ওসমানী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর কে আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে রূপান্তরিত করার জন্য সাবেক অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত তিন হাজার কোটি টাকা বরাদ্দ দিয়েছিলেন স্বল্প সময়ের মধ্যে বিমানবন্দরটি আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের রূপ নেবে। আম্বরখানা থেকে বিমানবন্দর পর্যন্ত চার লেন করার অনুমোদন পেলেও অর্থ বরাদ্দ হয়নি। বাদাঘাট সড়ক ৬ লেন করার পরিকল্পনা রয়েছে বর্তমান সরকারের। ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের টেন্ডার কিছুদিনের মধ্যে হবে বলে জানিয়েছেন মন্ত্রী। বক্তব্য শুরুতে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে বলেন তার স্বপ্নের বাংলাদেশ গঠনে তার সুযোগ্য কন্যা শেখ হাসিনা দিনরাত পরিশ্রম করে দেশকে উন্নয়নশীল দেশে রূপান্তরিত করেছেন। প্রবাসীদের অংশগ্রহণের দেশ আরো অনেক দূর এগিয়ে যাবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

তিনি বলেন, বুনাই দূতাবাসের একজন বাঙালিকে কর্তৃপক্ষ মারধর করেছিল আমরা তাদেরও ব্যবস্থা নিয়েছি, রেমিট্যান্স যোদ্ধাদের সার্বিক নিরাপত্তা প্রদান, মর্যাদা ও অধিকার আদায়ে আমরা সচেষ্ট রয়েছি। উৎসবে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ দূতাবাসের মান্যবর রাষ্ট্রদূত প্রবাসবন্ধু মো.জসীম উদ্দিন এনডিসি তিনি তার বক্তব্য বলেন সিলেট উৎসবকে কেন্দ্র করে গ্রীসের ইতিহাসে বাংলাদেশের এই প্রথম কোন পরাষ্ট্রমন্ত্রীর আগমন তার আগমনে দু’দেশের সাথে সম্পর্ক আরো দৃঢ় হয়েছে। উৎসবে প্রধানমন্ত্রীর প্রেরিত বাণী পাঠ করেন জালালাবাদ এসোসিয়েশন ইতালির সভাপতি ওয়ালী উদ্দিন শামীম।

এছাড়া অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন দূতাবাসের কাউন্সিলর মোহাম্মদ খালেদ, ডক্টর সৈয়দা ফারহানা নূর চৌধুরী, প্রথম সচিব লেখক সুজন দেবনাথ, গ্রীস আওয়ামী লীগের সভাপতি মান্নান মাতুব্বর, সাধারণ সম্পাদক বাবুল হাওলাদার, যুবলীগের আহ্বায়ক কামরুল হাসান, যুগ্মসাধারণ সম্পাদক রাসেল মিয়া, ছাত্রলীগের যুগ্মসাধারণ সম্পাদক সজীব মাতব্বর, সজীব ব্যাপারী, বাংলা গ্রিক এডুকেশন সেন্টারের পক্ষে প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি দাদন মৃধা সহ প্রতিষ্ঠাতা সদস্যরা ক্রেস্ট প্রদান করেন, দোয়েল একাডেমির পক্ষ থেকে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানান শিক্ষক-শিক্ষিকারা।বৃহত্তর ফরিদপুর ফেডারেশনের সভাপতি আবিদ হানজালা নেতৃত্বে ফুলের শুভেচ্ছা প্রদান করেন।

শরীয়তপুর সমাজ কল্যাণ সমবায় সমিতির সভাপতি আলমগীর হুসাইন ফারুকের নেতৃত্বে ফুলের শুভেচ্ছা জানানো হয়, বৃহত্তর খুলনার সংগঠন ইন গ্রীস এর পক্ষ থেকে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা বিনিময় করেন। গ্রীসে অবস্থানরত সকল বাংলাদেশীদের প্রতিনিধিরা উপস্থিত থেকে অনুষ্ঠানকে সুন্দর ও সার্থক করে তুলেন। পরে সাংস্কৃতিক সন্ধ্যার মাধ্যমে অনুষ্ঠানের সমাপ্তি হয়।

Related Articles

Back to top button