আন্তর্জাতিক

শর্ত মেনে নেয়ায় ইসরাইলে হামলা বন্ধ করল ইসলামিক জিহাদ

ব্রিট বাংলা ডেস্ক :: ইহুদিবাদী ইসরাইল যুদ্ধবিরতি সংক্রান্ত দাবি মেনে নেয়ায় গাজা উপত্যকা থেকে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা বন্ধ করেছে ফিলিস্তিনের ইসলামিক জিহাদ আন্দোলন।

বৃহস্পতিবার বিকাল সাড়ে ৫টা থেকে দুই পক্ষই মিসরের মধ্যস্থতায় একটি অস্ত্রবিরতিতে রাজি হয়েছে।

ইহুদিবাদী ইসরাইল এবং জিহাদ আন্দোলনের মধ্যকার সংঘর্ষ বন্ধের ব্যাপারে মিসর যে উদ্যোগ নিয়েছিল তাতে জিহাদ আন্দোলন তিনটি শর্ত দিয়েছিল।

শর্তগুলো হলো- গাজা সীমান্তে ফিলিস্তিনিরা যে বিক্ষোভ-প্রতিবাদ করে আসছে তাতে ইসরাইল কোনো আগ্নেয়াস্ত্র ব্যবহার করতে পারবে না, সব ধরনের টার্গেট কিলিং বন্ধ এবং গাজা উপত্যকার উপরে তেল আবিব যে অবরোধ দিয়ে রেখেছে তা শিথিল করতে হবে।

জিহাদ আন্দোলনের মুখপাত্র মুসাব আল-ব্রাইম জানান, ফিলিস্তিনের প্রতিরোধ আন্দোলনের যোদ্ধাদের ওপর টার্গেটেড কিলিং এবং গাজা সীমান্তে ফিলিস্তিনি বিক্ষোভকারীদের ওপর আগ্নেয়াস্ত্র ব্যবহার বন্ধের ব্যাপারে দুটি শর্ত মেনে নিয়েছে তেল আবিব।

ইসরাইলি হানাদার বাহিনীর বিমান হামলায় গত তিন দিনে ৩২ জন নিহত হয়েছেন। এরপরেই দুই পক্ষের মধ্যে উত্তেজনা দেখা দিয়েছে।

মিসরীয় চেষ্টায় এই অস্ত্রবিরতি এসেছে। ইসলামিক জিহাদসহ ফিলিস্তিনি পক্ষগুলোও এতে সম্মতি দিয়েছে। এএফপিকে ইসলামিক জিহাদ সূত্রও এ খবর নিশ্চিত করেছে।

ফিলিস্তিনের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, আবু মালহুসের পরিবারের ছয় সদস্য নিহত হয়েছেন। তাদের মধ্যে তিন শিশু ও দুই নারী রয়েছেন।

উত্তর গাজার দির আল-বালাহে তাদের বাড়িতে বিমান হামলা চালিয়ে তাদের হত্যা করেছে ইসরাইলি বাহিনী।

অস্ত্রবিরতি ঘোষণার পর মর্গের বাইরে এবং জানাজায় হতাহত ও ক্ষয়ক্ষতির জন্য ফিলিস্তিনিরা শোক প্রকাশ করেন।

Related Articles

Back to top button