টেকনাফে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ রোহিঙ্গা ডাকাত নিহত

ব্রিট বাংলা ডেস্ক :: কক্সবাজারের টেকনাফে পুলিশের হাতে আটক অস্ত্রধারী রোহিঙ্গা ডাকাত নিয়ে অভিযানে গেলে ‘বন্দুকযুদ্ধের’ ঘটনা ঘটেছে। এতে পুলিশের তিন সদস্য আহত হলেও ঘটনাস্থল হতে গুলিবিদ্ধ ডাকাতকে হাসপাতালে নেওয়া হলে সে মারা যায়। এ সময় দেশীয় অস্ত্র ও গুলি উদ্ধার করা হয়।

শনিবার রাত ১টার দিকে শালবাগান পাহাড়ি এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। নিহত ডাকাত হাবিব উল্লাহ (৪০) রোহিঙ্গা ক্যাম্প-২৬ এর বাসিন্দা মৃত আলী আহমদের ছেলে।

পুলিশ জানায়, রাতে টেকনাফ মডেল থানা পুলিশের একটি দল আটক রোহিঙ্গা ডাকাত হাবিব উল্লাহকে (৪০) নিয়ে শালবাগান পাহাড়ি এলাকায় অভিযানে গেলে সশস্ত্র দূবৃর্ত্তরা পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলিবর্ষণ করে। এতে এসআই সুজিত চন্দ্র দে, এসআই মশিউর রহমান ও কনস্টেবল বেলাল উদ্দিন আহত হয়। তখন পুলিশ নিজের জান ও সরকারি সম্পদ রক্ষার্থে পাল্টা গুলিবর্ষণ করলে হামলাকারীরা দ্রুত পালিয়ে যায়। পরে ঘটনাস্থল হতে ২টি দেশীয় অস্ত্র, ১০ রাউন্ড বুলেটসহ গুলিবিদ্ধ ডাকাত হাবিব উল্লাহকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রে নেওয়া হয়। সেখানে আহত পুলিশ সদস্যদের চিকিৎসা দেওয়ার পর উন্নত চিকিৎসার জন্য হাবিবুল্লাহকে কক্সবাজার রেফার করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সে মারা যায়।

এই ব্যাপারে টেকনাফ মডেল থানার অফিসার্স ইনচার্জ প্রদীপ কুমার দাশ জানান, আটক ডাকাত সদস্যকে নিয়ে অবৈধ অস্ত্র উদ্ধার অভিযানে এই ঘটনা ঘটে। আহত পুলিশ সদস্যদের চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। অপরদিকে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত ডাকাতের দেহ মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
Advertisement