ফতুল্লায় অভিযানে জেএমবির সদস্য আটক, বিস্ফোরক উদ্ধার

ব্রিট বাংলা ডেস্ক :: নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লার তক্কার মাঠ এলাকায় পরিচালিত অভিযানে বিস্ফোরণ ও বোমা তৈরির সরঞ্জাম উদ্ধার করেছে পুলিশের কাউন্টার টেরোরিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইম (সিটিটিসি) ইউনিট। ঘটনাস্থল থেকে ফরিদ উদ্দিন রুমি (২৭) নামে একজন নব্য জেএমবির সদস্যকে আটক করা হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। এ ঘটনায় আরো দুজন আটক হলেও তাঁদের জঙ্গি সংশ্লিষ্টতার বিষয়ে বিস্তারিত জানা যায়নি।

আজ সোমবার সকাল থেকেই ফতুল্লার তক্কার মাঠ এলাকায় জঙ্গিবাড়ি সন্দেহে একটি বাড়ি ঘিরে রাখে পুলিশ। পরে সে এলাকার আরো ১৭টি বাড়িতে তল্লাশি চালায় পুলিশ। অভিযানে পুলিশের বোম্ব ডিসপোজাল ইউনিট ও কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিট ছাড়াও বিভিন্ন ইউনিট যোগ দেয়।

পুলিশ জানিয়েছে, বাড়িটি থেকে জঙ্গি সন্দেহে আটক রুমি ঢাকার সাম্প্রতিক পাঁচটি হামলা ও হামলাচেষ্টার সঙ্গে যোগসূত্র রয়েছে।

পুলিশের কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিটের প্রধান মনিরুল ইসলাম গণমাধ্যমকর্মীদের এসব তথ্য জানিয়ে বলেছেন, বাড়িটিতে বিস্ফোরণ ও বোমা তৈরির কিছু সরঞ্জাম রয়েছে যা বিগত সময়ে ঢাকায় জঙ্গিদের থেকে উদ্ধার করা সামগ্রীর সঙ্গে মিল রয়েছে।

তিনি বলেন, প্রথমে যে বাড়িটি সন্দেহ করা হয়েছিল মূলত এ বাড়িতে তারা ছিল না। পাশের একটি বাসা থেকে রুমিকে আটক করা হয়েছে। এ সময় আর তার স্ত্রীকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য নেওয়া হয়েছে।

অভিযান শেষ হলে এসব বিষয়ে বিস্তারিত জানানো হবে বলে জানান মনিরুল।

আজ ভোর থেকেই বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক কর্মকর্তা জয়নাল আবেদীনের বাড়িটি ঘিরে রাখে পুলিশের সিটিটিসি ইউনিট। এসময় জয়নাল আবেদীনের দু’ছেলেসহ তিনজনকে আটক করা হয়। আটক তিনজন হলেন- ফরিদ উদ্দিন রুমি (২৭), ফরিদের স্ত্রী জান্নাতুল ফোয়ারা অনু (২২) ও আরেক ছেলে জামাল উদ্দিন রফিক (২৩)।

এরপর সকাল সাড়ে ১০টার দিকে ফতুল্লার তক্কার মাঠ এলাকায় ওই বাড়িটিতে প্রবেশ করে বোম্ব ডিসপোজাল ইউনিটের সদস্যরা। পরে এ বিষয়ে বিস্তারিত জানানো হবে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
Advertisement