Advertisement

ব্রিটবাংলা ডেস্ক : ১৯৭০ সালের প্রথম দিকে ১৪ বছর বয়সে সময় বয়সী তিন কিশোর-কিশোরীকে ধর্ষণ এবং যৌন হয়রানীর অভিযোগে লর্ড সদস্যপদ হারাতে হয়েছিল রদারহ্যামের লেবার পার্টির সাবেক লর্ড সদস্য নাজির আহমেদকে। তবে যৌন হয়রানীর মামলার বিচার থেকে শেষ পর্যন্ত সাবেক লর্ড সদস্য নাজির আহমেদকে অব্যাহতি দিয়েছে জুরি বোর্ড। ৬৩ বছর বয়সী নাজির আহমেদের বিরুদ্ধে ১৯৭০ সালের প্রথম দিকে ১৬ বছরের কম বয়সী এক কিশোরীকে ধর্ষণের চেষ্টা এবং ১৪ বছরের কম বয়সী এক কিশোরকে যৌন হয়রানী এবং ১৬ বছরের কম বয়সী এক কিশোরকে ধর্ষণের অভিযোগ আনা হয়েছিল। এসব অভিযোগে শেফিল্ড ক্রাউন কোর্টে মামলার শুনানি চলছে। যদিও তাঁর বিরুদ্ধে আসা সব অভিযোগ অস্বীকার করে এগুলোকে কল্পকাহিনী বলে মন্তব্য করেছেন নাজির আহমেদ।
২২ শে ফেব্রুয়ারী, সোমবার শুনানিতে বিচারক জেরেমি রিচার্ডসন কিউসি জুরি বোর্ডকে জানিয়েছেন, আইনী কারণেই তাদেরকে বিচার থেকে অব্যাহতি দেওয়া হচ্ছে। তবে বিষয়টি নিয়ে প্রসিকিউশন এবং প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে এখনো আলোচনা চলছে।
১৪ বছরের কম বয়সী কিশোরকে যৌন হয়রানীর অভিযোগে একই মামলায় সাবেক লর্ড সদস্য নাজির আহমেদের ভাই ৭০ বছর বয়সী মোহাম্মদ ফারুক ফারুক এবং ৬৫ বছর বয়সী মোহাম্মদ তারিককে অভিযুক্ত করা হয়েছে। বয়সের ভারে এই দুই ব্যক্তিও আদালতে উপস্থিত হওয়ার মত যোগ্য নয় বলে বিচারক জানিয়েছেন। কিন্তু জুরি বোর্ড দাবী করেছে, অভিযোগ উত্থাপনের মতো কাজ তারা করেছে কি না, সেটা নির্ধারণ করতে হবে। তবে বিচারক জেরেমি রিচার্ডসন কিউসি জানিয়েছেন, এর বেশি আর কিছু জুরি বোর্ডকে তাঁর বলার নেই।

যদিও মোহাম্মদ ফারুক এবং মোহাম্মদ তারিক তাদের বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ অস্বীকার করে আসছেন।

উল্লেখ্য ২০১৬ সালে একজন পুরুষ এবং একজন মহিলা পুলিশের কাছে এই অভিযোগ করেছিলেন। পুলিশি তদন্ত রিপোর্ট প্রকাশের আগে ২০২০ সালের ১৪ নভেম্বর তিনি হাউস অব লর্ড থেকে পদত্যাগ করেন। আর ১৭ নভেম্বর রিপোর্ট প্রকাশ করে পুলিশ।

সাবেক প্রধানমন্ত্রী টনি ব্লেয়ারের আমলে ১৯৯৮ সালে তিনি হাউস অব লর্ডের সদস্য নিযুক্ত হয়েছিলেন।

তবে এর আগে কট্টর জঙ্গীবাদকে সমর্থনের অভিযোগে ২০১২ সালে তিনি লেবার পার্টি থেকে বরখাস্ত হন।