লন্ডনে রিজেন্ট পার্ক মসজিদে আনিসুল হকের জানাজা সম্পন্ন

ব্রিটবাংলা রিপোর্ট :   লন্ডনের  রিজেন্ট পার্ক মসজিদে শুক্রবার বাদ জুমা ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের সদ্যপ্রয়াত মেয়র আনিসুল হকের প্রথম জানাজা অনুষ্ঠিত হয়েছে। জানাজায় বাংলাদেশের পররাষ্ট্রপ্রতিমন্ত্রীসহ দেশের শীর্ষ েকয়েকজন ব্যবসায়ী নেতাদের দেখা গেছে।

বাংলাদেশ সময় আগামীকাল শনিবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে তাঁর মরদেহ ঢাকায় পৌঁছাবে বলে জানা গেছে।

শুক্রবার সন্ধ্যা ছয়টার দিকে লন্ডনের হিথ্রো বিমানবন্দর থেকে বাংলাদেশ বিমানের ফ্লাইট রয়েছে। সেই ফ্লাইটে মেয়র আনিসুল হকের মরদেহ বাংলাদেশে পাঠানোর পরিকল্পনা রয়েছে। সবকিছু ঠিক থাকলে আগামীকাল শনিবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে আনিসুল হকের মরদেহ ঢাকায় পৌঁছাবে।

পারিবারিক সূত্র জানায়, ঢাকায় আর্মি স্টেডিয়ামে জানাজা শেষে শনিবারই তাঁর মরদেহ বনানী কবরস্থানে দাফন করা হবে।

বাংলাদেশ সময় বৃহস্পতিবার রাত ১০টা ২৩ মিনিটে  লন্ডনের দ্য ওয়েলিংটন হাসপাতালে মেয়র আনিসুল হক মারা যান। হাসপাতালে তিনি কৃত্রিম শ্বাসপ্রশ্বাস (ভেন্টিলেশন) যন্ত্র দেওয়া অবস্থায় ছিলেন। রাতে তাঁর কৃত্রিম শ্বাসপ্রশ্বাস যন্ত্র খুলে নিয়ে চিকিৎসকেরা তাঁকে মৃত ঘোষণা করেন। তাঁর বয়স হয়েছিল ৬৫ বছর।

এফবিসিসিআই ও বিজিএমইএর সাবেক সভাপতি, ব্যবসায়ী ও একসময়কার টেলিভিশন ব্যক্তিত্ব আনিসুল হক ২০১৫ সালে আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী হিসেবে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের মেয়র নির্বাচিত হন।

আশি ও নব্বইয়ের দশকে টিভি উপস্থাপক হিসেবে ব্যাপক পরিচিতি পেয়েছিলেন আনিসুল হক। তার উপস্থাপনায় ‘আনন্দমেলা’ ও ‘অন্তরালে’ অনুষ্ঠান দুটি জনপ্রিয়তা পায়। তবে পরে টেলিভিশনের পর্দায় মানুষ তাকে বেশি দেখেছিল ব্যবসায়ী নেতা হিসেবেই। ২০০৫-০৬ সালে বিজিএমইএর সভাপতির দায়িত্ব পালনের পর ব্যবসায়ীদের শীর্ষ সংগঠন এফবিসিসিআইয়ের সভাপতি হন তিনি। ২০১০ থেকে ২০১২ সাল মেয়াদে সার্ক চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির সভাপতির দায়িত্বও পালন করেন আনিসুল হক।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
Advertisement